দেশে তৈরি যে ওষুধে ৫ দিনেই করোনা রোগী সুস্থ!

ভোরের টেকনাফ ডেস্ক::

দেশে বেড়েই চলেছে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। করোনা প্রতিষেধক ও চিকিৎসা নিয়ে একযোগে নিরলস পরিশ্রম করে যাচ্ছেন চিকিৎসা বিজ্ঞানিরা। এক্ষেত্রে পিছিয়ে নেই বাংলাদেশেও।

১৭ মে ঢাকার দোহার থানার ১৬ জন পুলিশ সদস্য করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের আইসোলশন বিভাগে ভর্তি করা হয়।

১৯ মে ১২ জন করোনা রোগীকে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজারবাগ কেন্দ্রীয় পুলিশ হাসপাতালে পাঠানো হয়। এরপর ১২ জন করোনা রোগীর মধ্যে ১১ জনকে বেক্সিমকো ফার্মার ওষুধ ‘ইভেরা টুয়েলভ’ এর সাথে ডক্সিসাইক্লিন দেয়া হয়। পাঁচদিন পর করোনা পরীক্ষায় ১১ জনই নেগেটিভ হন। যাকে খাওয়ানো হয়নি তিনি এখনো পজিটিভ।

এ বিষয়ে দোহার উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা গণমাধ্যমকে বলেন, বেক্সিমকো ফার্মার ওষুধ ইভেরা-১২ ওষুধ খেয়ে করোনা রোগী সুস্থ হয়ে উঠছেন। ১২ জন করোনা রোগীর মধ্যে মাত্র পাঁচদিনই ১১ জন করোনা পরীক্ষায় নেগেটিভ এসেছে।

রাজারবাগ কেন্দ্রীয় পুলিশ হাসপাতালের চিকিৎসকরা জানান, করোনা রোগীকে প্রতিদিন একটি ইভেরা-১২ ও একটি ডক্সিসাইক্লিন ওষুধ খাওয়ানো হয়। এভাবে এখন পর্যন্ত ৭০০ রোগীর উপর এ ওষুধ প্রয়োগ করে ৯৫ ভাগ সুফল মিলেছে।

💝সংবাদটি লাইক এবং শেয়ার করুন…

শেয়ার করুন !

Daily Vorer Teknaf

সুন্দর আগামী বিনিমার্ণে একটি অঙ্গীকারবদ্ধ সংবাদ মাধ্যম। দৈনিক ভোরের টেকনাফ সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো বক্তব্য না করার জন্য পাঠকদের অনুরোধ করা হলো।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *