টেকনাফে আবাসিক হোটেলের কক্ষে যুবকের লাশ

কক্সবাজারের টেকনাফে এক যুবক গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে টেকনাফ পৌর এলাকার আবাসিক হোটেলের ১১০নং কক্ষ থেকে মোহাম্মদ মানিকের (২০) গলায় ফাঁস লাগানো লাশ উদ্ধার করে উপজেলা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। কিশোরগঞ্জ জেলার বাজিতপুর উপজেলার জুম্মাপুর গ্রামের দুদু মিয়ার পুত্র তিনি।

টেকনাফ মডেল থানার ওসি হাফিজুর রহমান জানান, পুলিশ লাশ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করেছে। এই ব্যাপারে পরবর্তী আইনি পদক্ষেপ গ্রহণের প্রক্রিয়া চলছে।

উল্লেখ্য, প্রায় মাস দেড়েক ধরে এই যুবক, তার ভাই ও দুলা ভাই মিলে টেকনাফ পৌর এলাকায় ফল-ফলাদি বিক্রি করে আসছে। দুপুরে খাবারের ভাত রান্না করার বিষয় নিয়ে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। তাকে গালমন্দ করে ভাত রান্না করার জন্য হোটেলে পাঠানো হয়।

এদিকে দুপুর গড়িয়ে বিকাল হলেও তিনি ফিরে না আসায় তাকে খুঁজতে রুমে যায়। সেখানে গলায় গামছা প্যাছানো ঝুলন্ত অবস্থা মৃতদেহ পায়। তখন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

শেয়ার করুন !

Daily Vorer Teknaf

সুন্দর আগামী বাস্তবায়নে এটি একটি অঙ্গীকারবদ্ধ অনলাইন সংবাদ মাধ্যম। 'দৈনিক ভোরের টেকনাফ' সংবিধান ও জনমতের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। তাই ধর্ম ও রাষ্ট্রবিরোধী এবং উষ্কানীমূলক কোনো মন্তব্য না করার জন্য প্রিয় পাঠকদের প্রতি অনুরোধ করা হল। ধন্যবাদ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *